উদ্যোক্তা কাকে বলে?

উদ্যোক্তা কাকে বলে: কোন গতানুগতিক বা ধারাবাহিক চিন্তা চেতনার বাইরে নতুন ও ভিন্নধর্মী পরিকল্পনা গ্রহণে মাধ্যমে কিংবা আগের কোন পরিকল্পনা থেকে নতুন মাত্রা যোগ করে ভিন্ন অঙ্গিকে নতুন কিছু করার পরিকল্পনা বাস্তবায়নে সহায়তা প্রদান করে তাকে উদ্যোক্তা বলে।

অর্থাৎ উদ্যোক্তা এমন একটি বিষয় যা সাধারণ অর্থ দিয়ে প্রকাশ করা সম্ভব নয় তাই জটিল আকারে এটি প্রকাশ করতে হবে। মূলত উদ্যোক্তা হতে গেলে প্রথমে আপনাকে ভিন্ন ধর্মে একটি মন-মানসিকতা থাকতে হবে যার দ্বারা পরিকল্পনা বাস্তবায়ন হবে।

উদ্যোক্তা কাকে বলে
উদ্যোক্তা কাকে বলে?

একজন উদ্যোক্তার মূল কাজ হল পরিশ্রম করা এবং সে পরিশ্রম অনুযায়ী নতুন পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা।

আর এমন ভাবে পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা যেন উদ্যোক্তা হয়ে আপনি বেকারত্ব দূর করতে পারেন আপনার ভিন্ন অঙ্গীকে।

এখন প্রশ্ন হলো যে বাংলাদেশের অধিকাংশ মানুষ চাকরির পেছনে ছুটে, তাহলে প্রশ্ন উদ্যোক্তা হওয়া কি ভালো? তাই চলুন আজকে আমরা খুব সাধারণভাবে এই বিষয়টির উত্তর সম্পর্কে জেনে আসি যে উদ্যোক্তা হওয়া আসলে ভালো কিনা?

উদ্যোক্তা হওয়া কি ভালো?

আমাদের দেশে চাকরিজীবীর সন্ধান খুঁজে পাওয়া মুশকিল হলেও অধিকাংশ মানুষ চাকরির অপেক্ষায় জীবন নষ্ট করে। আসলে চাকরির পেছনে ছুটে বেড়াচ্ছে উদ্যোক্তা হওয়া অবশ্যই একটি মহৎ কাজ এবং অবশ্যই এটি ভালো ফলাফলের জন্য দায়ী।

আসলে অবশ্যই উদ্যোক্তা হওয়া একটি ভালো কাজ কেননা এর ফলে অধিকাংশ যুবকের বেকারত্ব দূর করা যায়।

আবার সেই সাথে নিজের বেকারত্ব দূর করার মাধ্যমে নতুন অঙ্গীকে প্রয়োজনের চেয়ে অধিক অর্থ উপার্জন করা সম্ভব হয়।

আরও পড়ুন: সংবেদনশীলতা কাকে বলে উদাহরণ দাও?

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top